২৪২ কোটি ইউরো জরিমানা গুগলকে

ইউরোপীয় কমিশনের প্রতিযোগিতাবিষয়ক কমিশন গুগল কর্তৃপক্ষকে মোট ২৪২ কোটি ইউরো বা ২৭২ কোটি মার্কিন ডলার জরিমানা করেছে। যা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ২২ হাজার কোটি টাকা। গুগলের বিরুদ্ধে তাদের সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করে গুগলের অন্য পণ্য, বিশেষ করে শপিং ব্যবসায় ট্রাফিক টেনে নেওয়ার অভিযোগ করা হয়েছে।

দ্য ইনডিপেনডেন্টের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দ্রুতবর্ধনশীল ও প্রচণ্ড প্রতিযোগিতামূলক অনলাইন শপিংয়ের দুনিয়ায় নিজেদের প্রভাবশালী অবস্থানের অপব্যবহার করার কারণে এই রেকর্ড পরিমাণ জরিমানার মুখোমুখি গুগল।

ইউরোপীয় কমিশন বলেছে, অসদাচরণ শোধরানোর জন্য গুগলের হাতে ৯০ দিন আছে। এর মধ্যে ঠিক না হলে গুগলের মূল প্রতিষ্ঠান অ্যালফাবেটের বিশ্বজুড়ে দৈনিক গড় আয়ের ৫ শতাংশ জরিমানা আকারে শোধ করতে হবে। প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ আর্থিক প্রতিবেদন অনুসারে এই জরিমানা হতে পারে দৈনিক প্রায় ১ কোটি ৪০ লাখ ডলার। প্রতিযোগিতাবিমুখ এই আচরণ গুগল কীভাবে সংশোধন করবে, রায়ে তা ঠিক করার ভার গুগলের ওপরই ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

গুগল এই রায়ের বিরুদ্ধে ‘আপিল করার কথা বিবেচনা করছে’ বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বিবিসি। গুগল কর্তৃপক্ষ বলেছে, জরিমানার বিষয়টি তারা পর্যালোচনা করে আপিল করার কথা ভাবছে। এ ছাড়া অনলাইন শপিং ব্যবসাকে পরিচালনা করার বিষয়টির পক্ষে যুক্তি দিয়েছে গুগল। তারা বলছে, এটা ব্যবহারকারী ও বিজ্ঞাপনদাতাদের মধ্যে এমনভাবে সম্পর্ক তৈরি করে, যা উভয়ের জন্যই দরকারি।

Sharing is caring!

(Visited 1 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *